আপনার বিশ্বাস বাড়িয়ে দেবে যে ৩টি কাজ

image_pdfimage_print

দৈনন্দিন জীবনে আমরা অনেক কথা বা কাজ করে থাকি। আমরা এতো কথা বলি কিংবা এতো কাজ করি- একবারও ভাবি না যে, আমাদের আসলে কোন কাজটা আর না করা উচিত বা কোন কথা আর না বলা উচিত। কিংবা কি ধরণের কথা বেশি বলার কারণে আমাদের প্রতি অন্যদের বিশ্বাস কমে যাচ্ছে। অথচ এই বিশ্বাসই হচ্ছে মানব জীবনের সব থেকে বড় সম্পদ। একটি হাদিসে আমাদের নবী (সা.) বলেছেন, যে কেউ আল্লাহর প্রতি বিশ্বাস রাখে এবং শেষ দিবসে বিশ্বাস করে সে ভালো কথা বলুক অথবা নীরব থাকুক। যে কেউ আল্লাহর প্রতি বিশ্বাস রাখে এবং শেষ দিবসের প্রতি, সে যেন তার প্রতিবেশীকে সম্মান করে। যে কেউ আল্লাহর প্রতি বিশ্বাস রাখে এবং শেষ দিবসের প্রতি, সে যেন তার অতিথিকে সম্মান করে। (বুখারী ও মুসলিম) নিন্মে এমন কিছু কাজের কথা উল্লেখ করছি যার মাধ্যমে আপনার প্রতি মানুষের বিশ্বাস বৃদ্ধি পাবে।

ভালো কথা বলুন বা নীরব থাকুন : জিহবা আল্লাহর পক্ষ থেকে মানুষের জন্য বড় একটি নেয়ামত। সুতরাং মানুষের উচিত হবে জিহবার সঠিকভাবে ব্যবহার করা। জিহবা দিয়ে আপনি মানুষকে ভালো কিছু উপদেশ দিন। কুরআন পড়ুন এবং আল্লাহকে স্মরণ করুন। অন্য একটি হাদিসে এসেছে। সমাজে পরিবর্তনের জন্য জিহবা একটি গুরুত্বপূর্ণ হাতিয়ার হতে পারে।  নবী (সা.) বলেছেন, তোমাদের মধ্যে যে কেউ মন্দ কাজ দেখবে, সে তার হাত দিয়ে তা পরিবর্তন করার চেষ্টা করে। যদি সে তা করতে সক্ষম না হয়, তাহলে সে যেন তার জিহ্বা দিয়ে চেষ্টা করে। আর যদি সে তাও করতে না পারে তবে সে যেন তার হৃদয়ের দিয়ে কাজটিকে ঘৃণা করে। এটি ঈমানের দুর্বলতম স্থান। (মুসলিম) সুতরাং, জিহবার মূল কাজ হলো নীরব থাকা। তবে আপনি যদি কিছু বলতে চান তাহলে অবশ্যই আপনাকে ভালো কিছু বলতে হবে। খারাপ কিছু বলা থেকে আপনাকে বেঁচে থাকতে হবে।

প্রতিবেশীদের সম্মান করা : আপনি যদি আপনার প্রতি মানুষের বিশ্বাসটা বাড়াতে চান তাহলে আবশ্যই আপনাকে প্রতিবেশিদের সাথে ভালো ব্যবহার করতে হবে। এই বিষয়ে পবিত্র কুরআনে মহান আল্লাহপাক ইরশাদ করেছেন, আর তোমরা সবাই আল্লাহর বন্দেগী করো। তার সাথে কাউকে শরীক করো না। বাপ-মার সাথে ভালো ব্যবহার করো। নিকট আত্মীয় ও এতিম-মিসকিনদের সাথে সদ্ব্যবহার করো। আত্মীয় প্রতিবেশী, অনাত্মীয় প্রতিবেশী, পার্শ্বসাথী,  মুসাফির এবং তোমাদের মালিকানাধীন বাদী ও গোলামদের প্রতি সদয় ব্যবহার করো। নিশ্চিতভাবে জেনে রাখো, আল্লাহ এমন কোন ব্যক্তিকে পছন্দ করেন না যে আত্মঅহংকারে ধরাকে সরা জ্ঞান করে এবং নিজের বড়াই করে। (আন নিসা: ৩৬)

প্রতিবেশীদের প্রতি উদারতা হচ্ছে তাদের সুখ ও দুঃখের মুহূর্তগুলি ভাগ করে নিতে, সংকটের সময়ে তাদের সাহায্য করতে হবে, তাদের পরিদর্শন করতে হবে, নিজের বাড়িতে আমন্ত্রণ জানাতে হবে। তাদের  দাওয়াত গ্রহণ করতে হবে।

অতিথিদের সম্মাননা করা : যিনি নিজেকে প্রকৃত মুসলমান হিসেবে দাবি করবে সে যেন আতিথেয়তা করে। এবং অতিথিদের প্রতি সম্মান ও উদারতা প্রদর্শণ করে। ইসলামের দৃষ্টিতে এটা খুবই গ্রুত্বপূর্ণ একটি কাজ।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Please wait...

Subscribe to our Site

Want to be notified when our article is published? Enter your email address and name below to be the first to know.